ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৫ আগস্ট ২০২১

ডিপিএড/সি-ইন-এড এ অকৃতকার্য হলে বেতন বাড়ে!

আছমাউল আলম

২০২১-০৭-১৪ ১৪:১৪:৩৭ /

 

আমার পরিচিত জনাব রওশন আরা বীথি,সহকারী শিক্ষক।তিনি ১৫তম (৯৭০০...........২৩৪৯০) গ্রেডে ২১/১১/২০১৩ ইং তারিখ ৯৭০০/- টাকা মূলবেতনে যোগদান করেন।

ধরি,জনৈক কামাল হোসেন একই তারিখে একই পদে একই গ্রেডে যোগদান করেন।তারা উভয়ই ২০১৬-২০১৭ শিক্ষাবর্ষে দেশের প্রচলিত পিটিআই-তে বিধি মোতাবেক ডিপিএড/সি-ইন-এড প্রশিক্ষণ গ্রহণের জন‍্য ভর্তি হলেন।তারা দীর্ঘ ১৮ মাসের প্রশিক্ষণটি শেষও করলেন।এবার ফলাফলের হিসেব-নিকেশ।

উল্লিখিত শিক্ষাবর্ষের ফলাফল সরকার ২৩/১০/২০১৭ইং তারিখ ঘোষণা করে।এতে দেখা যায় জনাব রওশন আরা বীথি পাস করেছেন,কিন্তু জনাব কামাল পাস রতে পারেননি!যাহোক,এবার এই পাস-ফেলের তুলনায় আসা যাক...

জনাব বীথি-


৪৭০০---৯৭৪৫

৪৭০০---২১.১১.২০১৩

উন্নীত স্কেলঃ ০৯.০৩.২০১৪


৪৯০০.....১০৪৫০

৪৯০০.....০৯.০৩.২০১৪

৫১৯০.....২১.১১.২০১৪(বেঃবৃদ্ধি)

জাঃবেঃস্কেল/২০১৫

* ৯৭০০.....২৩৪৯০

১০১৯০......০১.০৭.২০১৫(বেঃনিঃ)

১০৭০০.....২১.১১.২০১৫(বেঃবৃঃ)

১১২৪০......০১.০৭.২০১৬(ঐ)

ডিপিএড গ্রেডঃ

*১০২০০....-.২৪৬৮০

১০৭১০ + পিপি ৫৩০.....২১.১১.২০১৭(নিঃধাঃ)

১১২৫০......০১.০৭.২০১৭(বেঃবৃঃ)

১১৮২০......০১.০৭.২০১৮(ঐ)

১২৪২০......০১.০৭.২০১৯(ঐ)

উন্নীত গ্রেডঃ০৯.০২.২০২০

*১১০০০.....২৬৫৯০

১২৭৪০......০৯.০২.২০২০(উঃধাঃ)

১৩৩৮০.....০১.০৭.২০২০(বেঃবৃঃ)

১৪০৫০.....০১.০৭.২০২১(ঐ)

এবার জনাব কামালের কথায় আসা যাক।তিনি ফেল করেছেন।তাই তিনি সহকর্মী বীথির ন‍্যায় উচ্চতর গ্রেড প্রাপ‍্য হননি।তাই তার বেতন চিত্রটি তুলে ধরছি।

*৯৭০০.................২৩৪৯০

১১২৪০..............০১.০৭.২০১৬

১১৮১০...............০১.০৭.২০১৭

১২৪১০................০১.০৭.২০১৮

১৩০৪০...............০১.০৭.২০১৯

উন্নীত গ্রেডঃ০৯.০২.২০২০

*১১০০০.......২৬৫৯০

১৩৩৮০.......০৯.০২.২০২০(উঃধাঃ)

১৪০৫০.......০১.০৭.২০২০(বেঃবৃঃ)

১৪৭৬০.......০১.০৭.২০২১(ঐ)

উল্লিখিত দুজন সহকর্মীর বেতনের বাস্তব চিত্র তুলে ধরলাম এবং দেখা যাচ্ছে যে,জনাব বীথি মানসম্মত প্রাথমিক শিক্ষা বাস্তবায়নের পূর্ব শর্ত প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত হয়ে নিজের দক্ষতা বৃদ্ধি করেও তার সহকর্মীর তুলনায় ০১.০৭.২০১৭ থেকে বেতন কম পেয়ে আসছেন যা চলতি বছরে ১৪৭৬০ - ১৪০৫০ = ৭১০ টাকা বেতন কম পাচ্ছেন।ফলে বাড়িভাড়া ভাতাও কম পাচ্ছেন!

সমপদে একই সহকর্মীর বেতনের এই বাস্তব বৈষম্য বিদ‍্যমান রেখে মানসম্মত প্রাথমিক শিক্ষা বাস্তবায়ন কীভাবে সাফল্যের মুখ দেখবে তা ভাবতেই আমিসহ পুরো জাতি কিংকর্তব‍্যবিমুঢ়!

তাই প্রাথমিক শিক্ষা পরিবারের একজন অতি সাধারণ সদস্য হিসেবে মনে করি,০৯.০২.২০২০ এ গ্রেড সমতাকরণের পাশাপাশি বেতন সমতাকরণও অতীব জরুরি।।

লেখক: সহকারী শিক্ষক,উছমানপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়,কুলিয়ারচর,কিশোরগঞ্জ ও মিডিয়া বিষয়ক সম্পাদক,বাংলাদেশ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি,কেন্দ্রীয় কমিটি।

বাংলাদেশ শিক্ষা/এফএ

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর

২০১৯ প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ বিধিতে শিক্ষাগত যোগ‍্যতায় সংস্কার জরুরি

২০১৯ প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগ বিধিতে শিক্ষাগত যোগ‍্যতায় সংস্কার জরুরি

শিক্ষকের মর্যাদা ও সম্মান রক্ষায় সমন্বিত নিয়োগবিধি সংশোধন চায় ঐক্য পরিষদ

শিক্ষকের মর্যাদা ও সম্মান রক্ষায় সমন্বিত নিয়োগবিধি সংশোধন চায় ঐক্য পরিষদ

প্রসঙ্গ: সমন্বিত নিয়োগবিধি-২০২১

প্রসঙ্গ: সমন্বিত নিয়োগবিধি-২০২১