ঢাকা, শুক্রবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২১

পাবজি ও ফ্রি ফায়ার গেম সম্পর্কে যে চুড়ান্ত সিদ্ধান্ত দিল বিটিআরসি

নিজস্ব প্রতিবেদক

২০২১-০৮-২৫ ১৬:৪৭:৪১ /

ফাইল ছবি
শেষ পর্যন্ত পাবজি, ফ্রি ফায়ারের মতো ক্ষতিকর অনলাইন গেমস দেশে বন্ধ করতে নির্দেশনা দিয়েছে টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রক সংস্থা (বিটিআরসি)।

এছাড়া টিকটক, বিগো লাইভ ও লাইকির মতো অ্যাপসগুলো বন্ধ ও বাংলাদেশ থেকে লিঙ্ক সরিয়ে নেয়ার জন্যও চিঠি দেয়া হবে বলে জানানো হয়েছে।

আজ বুধবার (২৫ আগস্ট) বিটিআরসির ভাইস চেয়ারম্যান সুব্রত রায় গণমাধ্যমকে এ তথ্য জানান। সুব্রত রায় বলেন, মঙ্গলবার (২৪ আগস্ট) ডিপার্টমেন্ট অব টেলিকম (ডট)-কে এ নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। আমরা পাবজি, ফ্রি ফায়ার বন্ধের নির্দেশ দিয়েছি। টিকটক ও লাইকিসহ অন্যান্য ক্ষতিকর অ্যাপসগুলো বন্ধ করলেও ভিপিএন দিয়ে চালানো যায়। এসব বন্ধ করার মতো সক্ষমতা আমাদের নেই। এই সব অ্যাপসের কর্তৃপক্ষের কাছে চিঠি দেয়া হবে।

এর আগে সব অনলাইন প্লাটফর্ম থেকে অবিলম্বে পাবজি, ফ্রি ফায়ারসহ ক্ষতিকর গেম বন্ধে বৃহস্পতিবার (১৯ আগস্ট) লিখিত আদেশ প্রকাশ করেছেন হাইকোর্ট। আদেশে তিন মাসের জন্য এসব গেম অনলাইনে বন্ধ রাখার কথা বলা হয়েছে। পরে এ আদেশের বিরুদ্ধে আইনি পদক্ষেপ নিয়েছেন ই-স্পোর্টস স্পেশালিষ্ট ওয়ালিউর রহমান সোহান।

রোববার (২২ আগস্ট) ফেসবুকে একটি পোস্ট দিয়ে তিনি এ তথ্য নিশ্চিত করেন। ফেসবুক পোস্টে ওয়ালিউর রহমান সোহান বলেন, আনন্দের সাথে সবাইকে জানাতে চাই যে আমি মোহাম্মদ ওয়ালিউর রহমান, ই-স্পোর্টস এর পক্ষে দেশে পাবজি মোবাইল ও ব্যাটেল গ্রাউন্ড গেমস বন্ধের ব্যাপারে যে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে তার বিপক্ষে আইনি লড়াইয়ের সিদ্ধান্ত নিয়েছি। এ কাজে আমাদেরকে আইনি সহায়তা দেবেন ব্যারিস্টার অনিক আর হক এবং অ্যাডভোকেট আরেফা পারভীন তাপসী। আমরা একজোট হয়ে এ ব্যাপারে লড়াই করব বলে আশা করছি।

ফেসবুক পোস্টে তিনি আরও বলেন, আমি দেশের সকল পাবজি প্লেয়ার ও ফ্রি ফায়ার গেমস লাভারদের ধন্যবাদ জানাতে চাই কারণ তারা আমাদের প্রতিনিয়ত সঠিক তথ্য দিয়ে সাহায্য করে যাচ্ছেন। আশা করি শেষ পর্যন্ত আপনাদের সবার এই সহযোগিতা অব্যাহত থাকবে।

গত ১৬ আগস্ট ফ্রি ফায়ার ও পাবজির মতো জনপ্রিয় সব বিপজ্জনক অনলাইন গেম বন্ধের নির্দেশ দেন হাইকোর্ট। একইসঙ্গে টিকটক, বিগো লাইভ ও লাইকির মতো সব ধরনের অ্যাপস বন্ধের কেন নির্দেশ দেওয়া হবে না, তা জানতে চেয়ে রুল জারি করেন আদালত।

তার আগে গত ২৪ জুন হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় মানবাধিকার সংগঠন ‘ল অ্যান্ড লাইফ’ ফাউন্ডেশনের পক্ষে গেম এবং অ্যাপগুলোর ক্ষতিকারক দিক তুলে জনস্বার্থে রিটটি করেন সুপ্রিমকোর্টের দুই আইনজীবী ব্যারিস্টার মোহাম্মদ হুমায়ন কবির পল্লব ও মোহাম্মদ কাউছার।

বাংলাদেশ শিক্ষা// আলম

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর

স্মার্টফোনে ভাইরাস ডিলিট করার সহজ উপায়

স্মার্টফোনে ভাইরাস ডিলিট করার সহজ উপায়

গুগলের সেবা মিলবেনা যে সকল স্মার্ট-ফোনে

গুগলের সেবা মিলবেনা যে সকল স্মার্ট-ফোনে

কম্পিউটারে কাজ করার সময় চোখকে চাপমুক্ত রাখতে কি করণীয় ?

কম্পিউটারে কাজ করার সময় চোখকে চাপমুক্ত রাখতে কি করণীয় ?