ঢাকা, রবিবার, ৩ জুলাই ২০২২

প্রসঙ্গ: প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সময়সূচী পরিবর্তন

মোঃ ফারুক হোসেন

২০২২-০৬-১২ ১১:৩৫:৪২ /

 

এক বাংলাদেশ, একই প্রাথমিক বিদ্যালয়,একই শিক্ষানীতি,একই পাঠ্যপুস্তক একই যোগ্যতাসম্পন্ন শিক্ষক তথা আনুসাঙ্গিক আরো কার্য্যক্রম প্রায় একই কিন্তু বিভিন্ন স্থানে বিভিন্ন সময়সূচী যা কোমলমতি শিশুদের কথা ভেবে বাংলাদেশের সকল প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সময়সূচী একই হওয়া বাঞ্ছনীয়। 

শ্রদ্ধা রেখে বলছি যাঁরা প্রাথমিক বিদ্যালয় নিয়ে সরকারের উচ্চ পর্যায়ে রয়েছেন তাঁরা তো অনেক গবেষণা করে থাকেন প্লিজ বিদ্যালয়ের সময়সূচী নিয়ে কিছু একটা ভাবুন।একটা জগে যে পরিমাণ পানি ধরবে তার বেশি ভরানোর চেষ্টা করলে পানি উপছিয়ে গড়ে পড়বে,তেমনি প্রাথমিক শিক্ষার্থীদের ক্ষেত্রেও ঘটবে এটাই স্বাভাবিক।

বাংলাদেশের সব দপ্তরে এমনকি মাধ্যমিক বিদ্যালয় ও উচ্চ মাধ্যমিকে মধ্যাহ্ন বিরতি এক (১) ঘন্টা আর আমাদের প্রাথমিক বিদ্যালয়ে মাত্র ত্রিশ (৩০) মিনিট যা খুবই অল্প সময়।আবার প্রাথমিক বিদ্যালয়েই স্থান ভেদে সময়ের বিভিন্নতা লক্ষণীয় যা শিক্ষক ও শিক্ষার্থী উভয়ের ক্ষেত্রেই এক ধরণের বৈষম্য!স্থানভেদে যে সময়সূচী চলমান আছে নিম্নে তা তুলে ধরছি।

ঢাকা মহানগর:
সকাল ৭:৩০ টা থে‌কে দুপুর ২:১৫ পর্যন্ত ।ঢাকার কেরানীগঞ্জ শহ‌রের ২ শিফট এর বিদ্যালয়ে ১ম শিফট সকাল ৬ঃ৩০ টা থে‌কে ১২টা পর্যন্ত ।
২য় শিফটঃ ‌১২ টা থে‌কে ৫:৩০ পর্যন্ত।

‌উপজেলা,জেলা শহর সহ গ্রামাঞ্চলের বিদ্যালয় গু‌লো এক শিফট  সকাল ৯:০০ টা থে‌কে ৪:০০ টা পর্যন্ত ।দুই শিফট সকাল ৯ঃ০০ টা থেকে ৪ঃ৩০টা পর্যন্ত।

বাস্তবতার নিরিখে আমার বিনীত প্রস্তাবিত সময়সূচী
সকাল ৯ঃ০০টা থেকে বেলা ২ঃ০০টা   অথবা,
সকাল ১০ঃ০টা থেকে বিকাল ৩ঃ০০টা করা এখন অতিব জরুরী।কারণ কোমলমতি শিক্ষার্থীরা দীর্ঘ সময় বিদ্যালয়ে ঝিমিয়ে পড়ে।তাদের মধ্যে এক ধরণের ক্লান্তি বা অস্বস্তি কাজ করে পাশাপাশি শিক্ষকদের পাঠদানের ক্ষেত্রেও নানাবিধ সমস্যা হয় তাদের অমনোযোগী আচরণের কারণে। 

শিক্ষার্থী ও শিক্ষক উভয়ের কথা ভেবে বাংলা‌দে‌শের সকল প্রাথ‌মিক বিদ্যালয়ের সময়সূচী সকাল ৯ঃ০০ টা থে‌কে দুপুর ২ঃ০০ টা পর্যন্ত অথবা, সকাল ১০ঃ০০টা থেকে বিকাল ৩ঃ০০ টা পর্যন্ত করা
এখন  সম‌য়ের দাবী।

বর্তমান শিক্ষাবান্ধব সরকার,সরকার প্রধান, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী তথা প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়,উপরোক্ত বিষয়ে সুবিবেচনা করবেন এবং এ বিষয়ে একটি ইতিবাক সিদ্ধান্ত গ্রহণে সদয় হবেন,আমার বিনীত অনুরোধ। 

অতএব উপরোক্ত বিষয়ে সদয়ী হয়ে সুবিবেচনাপূর্বক ইতিবাচক ভূমিকা পালন করে শিক্ষার্থী ও শিক্ষক সবার জন্য মঙ্গলকর হয় এমন একটি সার্বজনীন সময়সূচী (সব সরকারি প্রাথমিক বিদ্যলয়ে একই সময়সূচী, সকাল ৯ঃ০০টা থেকে বেলা ২ঃ০০টা পর্যন্ত অথবা, সকাল ১০ঃ০০টা থেকে বিকাল ৩ঃ০০টা পর্যন্ত)নির্ধারন করে সিদ্ধান্ত গ্রহন করবেন প্রাথমিক শিক্ষা সংশ্লিষ্ট ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ তথা শিক্ষাবান্ধব সরকারেরর কাছে এমনটাই বিনীত প্রত্যাশা রাখছি।


লেখক: সহকারী শিক্ষক, 
বেলওয়া আদিবাসী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়,
ঘোড়াঘাট, দিনাজপুর।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর

স্বপ্নের পদ্মা সেতু: ফরিদ আহাম্মদ

স্বপ্নের পদ্মা সেতু: ফরিদ আহাম্মদ

বিশেষায়িত প্রাথমিক শিক্ষার জন্যে: ড. মো.আনিসুজ্জামান

বিশেষায়িত প্রাথমিক শিক্ষার জন্যে: ড. মো.আনিসুজ্জামান

 শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ছুটি প্রসঙ্গ: ড. মো. আনিসুজ্জামান

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ছুটি প্রসঙ্গ: ড. মো. আনিসুজ্জামান